মাধব বন-গোকুলে উদুখল

প্রকাশ: ৭ জানুয়ারি ২০২১ | ৬:০৯ পূর্বাহ্ণ আপডেট: ৭ জানুয়ারি ২০২১ | ৬:০৯ পূর্বাহ্ণ

এই পোস্টটি 484 বার দেখা হয়েছে

মাধব বন-গোকুলে উদুখল

একদিন গৃহকার্য সম্পাদনে বিরক্ত করার ফলে মাতা যশোদা শ্রীকৃষ্ণকে একটি উদুখলে বেঁধে রেখেছিলেন। শ্রীমদ্ভাগবতের (২/৭/২৭) তাৎপর্যে শ্রীল প্রভুপাদ লিখেছেন, ”মনের জল্পনা-কল্পনা অথবা ভোট দিয়ে ভগবান তৈরি করা যায় না। যা আজকাল অল্পবুদ্ধিসম্পন্ন মানুষেরা করছে। ভগবান চিরকালই ভগবান এবং জীব সর্বাবস্থাতেই ভগবানের বিভিন্ন অংশ। ভগবান এক এবং অদ্বিতীয়, কিন্তু জীব অসংখ্য। …ভগবান সর্বাবস্থাতেই সমগ্র ব্রহ্মাণ্ডের অধীশ্বর এবং তিনি তাঁর ইচ্ছা অনুসারে বিরাট রূপে অথবা ক্ষুদ্র রূপে লীলা-বিলাস করতে পারেন”। অনেকে মনে করে বৈদিক শাস্ত্রে বর্ণিত ভগবানের ভক্তের সাথে যে সমস্ত লীলাবলী, সেগুলো কতকগুলি কল্পকাহিনী মাত্র। কিন্তু, আজ থেকে ৫ হাজার বছর পূর্বে পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণ মাতা যশোদার বন্ধন স্বীকার করেছিলেন। যে উদুখলে বন্ধন করেছিলেন সেই স্থানটি বৃন্দাবনে এখনো বিদ্যমান যেটি ”মাধব বন-গোকুল” নামে পরিচিত।

মাসিক চৈতন্য সন্দেশ, ডিসেম্বর ২০২০ সংখ্যা

সম্পর্কিত পোস্ট

‘ চৈতন্য সন্দেশ’ হল ইস্‌কন বাংলাদেশের প্রথম ও সর্বাধিক পঠিত সংবাদপত্র। csbtg.org ‘ মাসিক চৈতন্য সন্দেশ’ এর ওয়েবসাইট।
আমাদের উদ্দেশ্য
■ সকল মানুষকে মোহ থেকে বাস্তবতা, জড় থেকে চিন্ময়তা, অনিত্য থেকে নিত্যতার পার্থক্য নির্ণয়ে সহায়তা করা।
■ জড়বাদের দোষগুলি উন্মুক্ত করা।
■ বৈদিক পদ্ধতিতে পারমার্থিক পথ নির্দেশ করা
■ বৈদিক সংস্কৃতির সংরক্ষণ ও প্রচার। শ্রীচৈতন্য মহাপ্রভুর নির্দেশ অনুসারে ভগবানের পবিত্র নাম কীর্তন করা ।
■ সকল জীবকে পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণের কথা স্মরণ করানো ও তাঁর সেবা করতে সহায়তা করা।
■ শ্রীচৈতন্য মহাপ্রভুর নির্দেশ অনুসারে ভগবানের পবিত্র নাম কীর্তন করা ।
■ সকল জীবকে পরমেশ্বর ভগবান শ্রীকৃষ্ণের কথা স্মরণ করানো ও তাঁর সেবা করতে সহায়তা করা।