কেপটাউন যুবাদের মুগ্ধ করল ভক্তিবাস উৎসব

0
421

Hare hrishna. ctgনিতাই দাস: দক্ষিণ আফ্রিকার মাতৃ শহর খ্যাত কেপটাউন দিব্য নাম এবং হাস্যরসময় ভক্তঙ্গে পরিপূর্ণ মুগ্ধ একটি সপ্তাহান্ত উপভোগ করে যা ছিল শ্রীমৎ ভক্তিভৃঙ্গ গোবিন্দ স্বামী এবং অকিঞ্চন কৃষ্ণ দাসের উপস্থিতিতে আশীর্বাদপুষ্ট।

ভক্তিবাস হচ্ছে ইসকন কেপটাউনের বেশ পুরোণো বৈষ্ণব সেনা যুব দল কর্তৃক আয়োজিত চার দিনের একটি অনুষ্ঠান যা ২১-২৪ জুন পর্যন্ত ব্যাপ্ত ছিল। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের ভক্তবৃন্দ ও কৃষ্ণ বলরাম যুবদলের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠানটি শ্রীমৎ ভক্তিভৃঙ্গ গোবিন্দ স্বামী এবং অকিঞ্চন কৃষ্ণ দাসের কীর্তনের মাধ্যমে শুরু হয় যা প্রত্যেককে দিব্য আনন্দময় করে তোলে।অনুষ্ঠানটি ছিল অন্য মাত্রার,আত্মার অনুভূতি, কনসার্ট, প্রসাদম, যুব সম্মেলন, ছয় ঘন্টা কীর্তনমেলা, রবিবাসরীয় ভোজ এবং আরও অনেক কীর্তন সমন্বিত। আত্মাবিব্যক্তি কনসার্টটি ছিল ভক্তিন লুসি ও ভক্ত কোসিনাথী সহ স্থানীয় নৃত্যশিল্পী এবং প্রতিভাধর সাংস্কৃতিক অভিনিবেশ এবং পরিশেষে শ্রীমৎ ভক্তিভৃঙ্গ মহারাজ এবং অকিঞ্চন কৃষ্ণ দাসের কীর্তন ছিল মনোমুগ্ধকর।

ক্যরিয়ার, সম্পর্কউন্নয়ন,পরিবার পরিকল্পনা, খাদ্য এবং সুস্বাস্থ্যের মত গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপারগুলোও যথেষ্ট হাস্যরস এবং কৌশলগতভাবে যুব সম্মেলনে খুব প্রাঞ্জলভাবে আলোচিত হয়েছিল।সম্মেলনটি শ্রীমৎ ভক্তিভৃঙ্গ স্বামীর বক্তৃতার মাধ্যমে সমাপ্ত হয় যেখানে তিনি ‘সম্পর্ক তৈরি এবং ভক্তদের নিজেদের মধ্যে যত্ন গ্রহণের’ মধ্যে জোরারোপ করেন।
এই ভক্তিপূর্ণ অনুষ্ঠানটি একে অপরের প্রতি বন্ধন, দৃঢ় সম্পর্ক, জীবন পরিবর্তনকারী অনুভূতি নিয়ে সমাপ্ত হয় এবং অবশ্যই অকিঞ্চ কৃষ্ণ প্রভুর কীর্তন প্রমাণ করে দেয় কিভাবে একজন ব্যক্তির কন্ঠস্বর অন্য কৃষ্ণসেবায় নিয়োগ করা যেতে পারে। তার অপূর্ব কীর্তন শ্রবণ করতে ক্লিক করুন https://www.youtube.com/watch?v=MCyHtOi1YY8। সেই অতুলনীয় অনুভূতির ফলশ্রুতিতে বৈষ্ণব সেনা ঘোষণা করে যে, এই ভক্তিবাস উৎসবটি এখন থেকে কেপটাউনের বার্ষিক উৎসব হিসেবেই উদ্যাপিত হবে এবং তারা আশা করছে একসময় বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ভক্তরা এই উৎসবে যোগদান করবেন। হরেকৃষ্ণ!

(মাসিক চৈতন্য সন্দেশ্ আগষ্টে ২০১৮ সালে প্রকাশিত)

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here